ইউজার লগইন

গভীর ভাবের পোষ্ট

অনেকদিন পরে ব্লগের সকলের মন ভালো তাই আমারো মন ভালো। এমনিতে ব্লগটা ঝিমায় অনেক। “আমরা বন্ধু” বাদ দিয়ে “আমরা ঝিমাই” দেয়ার অবস্থায় চলে যায় মাঝে মাঝে। শীতের আনন্দে অনেকেই ব্লগে ফেরত এসেছেন, ব্লগটা একটু চাঙ্গা হয়েছে এই খুশীতে আমিও একটা পোষ্ট দিতে চাই। পোষ্ট দেয়ার মতো কিছুই নাই তবুও দিবো তাই.........

প্রবাসে আমার দশা অনেকটা “ছাই ফেলতে ভাঙ্গা কুলা”, “নাই বনে শিয়াল রাজা” কিংবা “আলু”র মতো। “আলু” মানে সব তরকারীতেই যায় আর কি। অনুষ্ঠান উপস্থাপনা করতে কেউ নেই, ঠিকাছে “ওনি, কাচ্চা বাচ্চাদের নাচ দেখিয়ে দেয়ার কেউ নেই, ঠিকাছে “ওনি”, সেমিনারে বিদেশী গেষ্ট আসবে, ইংরেজী - ডাচ বলতে একজন মেয়ে দরকার, তাইলে “ওনি”, প্রধানমন্ত্রী আসবে মানপত্র পাঠ করতে লাগবে, আচ্ছা আর কাওরে না পেলে “ওনি”তো আছেনই। সবার লাষ্ট চয়েস। এহেন আমি কয়দিন ধরে গভীর ভাবে আছি।

প্রথম ভাব অবশ্য আসার আগেই কেটে গেছে। ঢাকা এয়ারপোর্টে দাঁড়িয়ে আছি ফকিরের মতো অসহায় হয়ে নিজের স্যুটকেসের আশায়। এ্যমেরিকানদের ঢাউশ ঢাউশ লাগেজের ভিতরে আমার রোগা পটকা স্যুটকেসের আর দেখা নেই। ঘন্টা পার হয়ে গেলে দেখা যাচ্ছে আমরা অনেক ইউরোপীয়ানই কনভেয়র বেল্টের চারপাশে লাট্টু খাচ্ছি আর ইয়া নফসী ইয়া নফসী করছি। ঐদিকের কাঁচের জানালা পাশ দিয়ে কয়শো টাকার জানি টিকেট কেটে ছোটবোন আর ভাইঝি ঢুকে হাত নেড়ে যাচ্ছে। মেয়ে ষোল ঘন্টার জার্নির শেষে এই কষ্ট আর নিতে পারছে না, এক ঠ্যাঙ্গে ঠাই দাঁড়িয়ে থাকা এক জায়গায় তাও যখন ঐপারে মধুর হাতছানি। কেঁদে কেটে, ঘ্যান ঘ্যানিয়ে চরমভাবে সে প্রতিবাদ করে যাচ্ছে। এমন সময় এক তীক্ষন ভাষিনী কানের পাশে বলে উঠলেন, “আপনাদের স্যুটকেস পাইছেন”? আমি ফিরে তাকিয়ে বুঝতে পারলাম না ওনি কাকে বলছেন। নিশ্চিত হওয়ার জন্য জানতে চাইলাম আমাকে বলছেন? তিনি মাথা নেড়ে নিশ্চিত করলেন, আমাকেই বলছেন। আমি কিছুই বুঝতে পারলাম না হঠাত আমাকে কেনো?

তিনি আমার প্রশ্নবোধক মুখভঙ্গী লক্ষ্য করে বললেন, আমাকে চিনতে পারেন নাই, আমি আমষ্টারডাম থাকি। ঐ যে বৈশাখে আপনার সাথে দেখা হলো, আপনি নাচলেন অনুষ্ঠানে। আমি আমার স্মৃতির মনিকোঠায় বারি মেরেও কিছু বের করতে না পেরে, চুপচাপ মাথা নেড়ে সায় দিলাম। মহিলা তাতেও দমলেন না, তিনি বললেন, আপনে না চিনলেও সমস্যা নাই, ভাইয়ের সাথে পাশের বেল্টের কাছে দেখা হইছে, কথা হইছে, ওনি চিনছেন আমাকে। আমি হাফ ছেড়ে বাঁচলাম। যাক, পরিবারের কেউতো ভদ্রতা রক্ষা করেছে। তখন আমি আমার স্যুটকেস আর ঐ আজাবখানা থেকে বেরোনো ছাড়া কিছু ভাবতে না পারলেও পরে ঘটনাটা মনে পরে বেশ ভাব ভাব ভাব আসলো মনে। “ইষ্টার ইষ্টার” ভাব।

দ্বিতীয় বারের অবস্থা আরো খারাপ। আমরা বড় গ্রোসারী করতে পাশের দেশে বেলজিয়ামে যাই। সেখানে তুলনামূলকভাবে সস্তা প্লাস অনেক বেশি চয়েস থাকে। কিন্তু বাংলা বাজার যেখানে সেখানে গাড়ি পার্কি এর বিরাট সমস্যা। আমরা বিশ কেজির বাশমতি, রুই, কই, ইলিশ, পাবদা, কাকরোল, পটল, আলাদ্দিনের মিষ্টি, প্রানের ঝাল চানাচুর, খেজুরের গুড় ইত্যাদি কিনে দাঁড়িয়ে আছি। তিনি গেছেন গাড়ি আনতে। শনিবার একেতো অনেক ভীড় সাথে ঠোলাদের আনাগোনা। এচাল থেকে বেচাল মানেই জরিমানা, টিকিট। সাধারনতঃ দোকান থেকে কেউ আমাদের বাজার গাড়িতে তুলতে সাহায্য করেন, সেদিন অনেক ভীড় তাই দোকানের কেউ গা করছেন না। আমিই একবার মেয়ে দেখছি, আর একবার প্যাকেট দেখছি ভীড়ের মধ্যে কেউ যেনো আমার লটকে শুটকি না নিয়ে যায় আর একবার দেখছি গাড়ি এলো কি না। এরমধ্যে একজন বেশ গোলগাল ভুড়িওয়ালা ভাইজান এসে বললেন, “স্লামালিকুম আপা, কেমন আছেন, মেয়েতো দেখি মাশাল্লাহ অনেক বড় হয়ে গেছে।“ টাশকিত আমি ভ্যাবাচ্যাকা খেয়ে জিজ্ঞেস্ করলাম, আমাকে বলছেন? তিনি বিমলানন্দে বললেন, “হ আপনারেই। কয়দিন আগে না আপনের নাটক দেখলাম, মনে নাই আমারে?”

আমি আমতা আমতা করছি চরম বিরক্ত নিয়ে। ওনি বিরাট হাসি দিয়া বললেন, অসুবিধা নাই, না চিনলে, পরের প্রোগ্রাম যেনো কবে, আবারতো দেখা হইবো। এবার কি করবেন, নাটক না নাচ? সেই মূহুর্তে গাড়ির টেনশান বিরক্তি আর ইলিশ মাছ পটলের মাঝে আমাকে কেউ “ইষ্টার” হিসেবে সনাক্ত করুক তা আমি কিছুতেই চাইছিলাম না। কিন্তু কিছু বলতেও পারছি না। ফোনে আমার ভাইকে এ গল্পটা এটুকু একদিন বলতেই ভাই বিরক্ত হয়ে বললো, চরম বেকুবতো তুই। তুই বলবি না, হ্যা চিনসি আপনারে, এখন আমার চালের বস্তাটা একটু গাড়িতে উঠায় দেন। কিন্তু তখন সেই বুদ্ধি মাথায় যোগায় নাই। পরে মাছ তরকারী সমেত শান্তিতে গাড়িতে বসার পর আবার আমার মনের মধ্যে ভাব খেলা করতে লাগলো। এই ভাব সহ্য করতে না পেরে এই পোষ্টের অবতারনা।

ডিং ডং

দুটো অতিরিক্ত ভাবমূলক ছড়া

ডুবে আছি বরফের তলে
কষ্ট যন্ত্রনা প্রতি পলে
বাসার ভিতরে হিটিং জ্বলে
এটাকে কি সুখে থাকা বলে?

এটি মেঘলার মুখে

হাট্টিমা টিম টিম
তারা গাছে মারে ডিম
তাদের ঘাড়ে দুটো শিং
তারা হাট্টিমা টিম টিম

তানবীরা
১৯.১২.২০১০

পোস্টটি ৮ জন ব্লগার পছন্দ করেছেন

উলটচন্ডাল's picture


উপদেশ একটাইঃ খ্যাতির বিড়ম্বনাকে শক্তিতে পরিণত করুন। Big smile

তানবীরা's picture


কি ধরনের শক্তি যদি একটু বিস্তারিত বলতেন Smile

নীড় সন্ধানী's picture


একবার নিউমার্কেটে ঘুরছি, হঠাৎ এক দোকানদার ছুটে এসে হাত জড়িয়ে ধরে বললো, ভাই কেমন আছেন
আমি বলি, জী ভালো।
দোকানী বলে, ভাই আসেন এক কাপ চা খান।
বললাম, না ধন্যবাদ। কাজ আছে।
দোকানী বললো, একটু আসতেই হবে, আমার দোকানে পদধুলি দিতে হবে।
বললাম, না ভাই পারবো না।
দোকানী বললো, আমাকে চিনতে পারছেন না?
বললাম, ইয়ে আসলে ঠিক.........।
দোকানী বললো, আরে সেদিন বোয়ালখালী কলেজে আপনার অনুষ্ঠানে স্টেজে কতো নাচলাম......টিভির চেয়েও আপনাকে দারুণ লাগছিল..........।

আমি আকাশ থেকে প্যারাসুটে নামছি তখন। ভাবের কোন তুলনা নাই। Smile

তানবীরা's picture


হ, নীড়দা ভাবের কোন তুলনা নাই যদি ভাবের সময় ভাব হয়। যখন বুয়ার মতো কাপড় প্যাচাইয়া মাছ পটলের হিসাবে ব্যস্ত তখন ভাব আসে? যখন সেজে গুজে বসে থাকি তখন কেউ চিনে না Sad

নাজমুল হুদা's picture


'ইস্টার' হতে মন চা্য় !

তানবীরা's picture


মঞ্চায় আবার কি? আপনিতো সুপার ইষ্টার

নাজমুল হুদা's picture


তার মানে, তারার চেয়েও আমার অবস্থান আরও-ও উপরে ? তা'হলে আমি মাটি হতে চাই, সকলের কাছাকাছি, সব চেয়ে কাছে ।

লীনা দিলরুবা's picture


হাট্টিমা টিম টিম
তারা গাছে মারে ডিম

মেয়েতো ভালই ছড়া কবিতা শিখতেছে Smile

ইস্টার হৈতে মন্চায়।

তানবীরা's picture


আপনে হলেন গোল্ডেন ইষ্টার Cool

১০

জ্যোতি's picture


আপা আপনের নাচ কিন্তু সেরম।আমিও চিনছি আপনেরে। আমারে চিনছেন তো?

১১

তানবীরা's picture


আপনারে না চিনলে চলবে? আপনার লেখা আর ফ্রায়েড রাইসও সেরকম

১২

হাসান রায়হান's picture


আপা আপনের নাচ কিন্তু সেরম। Laughing out loud Big smile Laughing out loud

১৩

তানবীরা's picture


আপনার নাচও মন্দ না মেজর Wink

১৪

মীর's picture


ওহ হো আপ্নেই তাইলে সেই! আপ্নের নাচের ভিড্যূ তো আমি নেট থিকা নামায় দেখছি। চ্রম।
আমারে চিনছেন? না চিননেরই কথা।
যাউক্গা এর্পরে প্রোগ্রাম কবে? দাওয়াত না দিলেও কিন্তুক যামু কৈলাম।

১৫

তানবীরা's picture


আইসেন, দর্শক জনার্দন। তারা না আসলে কার জইন্য এই নাচ গান? আইসেন কিন্তু ভাইডি

১৬

টুটুল's picture


তারা গাছে মারে ডিম
তাদের ঘাড়ে দুটো শিং

এইটাতো বাংলাদেশের চিত্র.. মেঘলা এখনি চিন্না ফেল্ছে Smile

১৭

টুটুল's picture


এইটা কিন্তু ভাবের কমেন্টস Waiting Waiting

১৮

তানবীরা's picture


মেঘলার বাংলা শিখা আর আমার আরবী শিখা এক। পড়ে আর ভুলে, পড়ে আর ভুলে। কাঠবিড়ালী ছড়াটা এতো ভালো পারতো এখন তার এক লাইনও মনে নাই।

তাও তিন / চার বছর বয়সে শেখাটা হঠাৎ তার মনে পরে গেলো।

১৯

রাসেল আশরাফ's picture


আমিও ভাব ধরলাম কমেন্ট করুম না।

২০

তানবীরা's picture


আমিও রিপ্লাই দিবো না Glasses

২১

মেসবাহ য়াযাদ's picture


আপা আপনের নাচ কিন্তু সেরম Wink Big smile

২২

তানবীরা's picture


আপনার ফতুয়াও সেইরকম Wink

২৩

সাঈদ's picture


এই পোষ্ট থেইকা পাইলাম তানবীরা = আলু

২৪

তানবীরা's picture


Crazy Crazy Crazy

২৫

জেবীন's picture


হ! সেটাই... ইষ্টার মানু নিজেরে উইন্টার উইন্টার ভাব্লে কেম্নে হবে!!...   সব পালাপার্বন মেনে আমাদের এই ইষ্টারের সাজুগুজু দারুন লাগে আমার...

শুভজন্মদিন মেঘলা... Smile

২৬

তানবীরা's picture


খালামনিকেও জন্মদিনের শুভেচ্ছা Laughing out loud

২৭

বকলম's picture


আফা, আমারে আপনি চিনেন আর নাই চিনেন আমি কিন্তু আপনার চাউলের বস্তা উঠামু না। Steve

২৮

তানবীরা's picture


আপনারা থাকতে কি আমারেই চাইলের বস্তা উঠাইতে হইবেক? বিবেক নাই আপনেগো? জাতির বিবেক খুঁজতেছি Sad(

২৯

ভাঙ্গা পেন্সিল's picture


আলু হইলেও আপনি তারকা আলু, যেনতেন আলু না Wink

৩০

তানবীরা's picture


তানিম আসো, দুইটা ভালো মন্দ গপ সপ করি। টমেটো জুস খাবা টাবাস্কো দিয়ে? কিংবা মজেরেলা দিয়ে টোস্ট?

৩১

আবদুর রাজ্জাক শিপন's picture


'ইষ্টার' হইতে মঞ্চায় !

অটোগ্রাফ প্লীজ !

৩২

তানবীরা's picture


আরশি ভাই, বই ছাপা হোক তারপর অটোগ্রাফ প্র্যাক্টিস করবোনে Laughing out loud

৩৩

শওকত মাসুম's picture


'ইষ্টার' হইতে মঞ্চায় !

৩৪

তানবীরা's picture


সুপার ইষ্টাররা ভাব ধরলে আমি কি কমু? আমরা হইলাম পাতি ষ্টার।

৩৫

শওকত মাসুম's picture


আপনি তো ইন্টারন্যাশনাল ইষ্টার..

৩৬

নাহীদ Hossain's picture


খ্যাতি তো তাইলে আইসাই পড়ল ... বিখ্যাতিও লাইনে আছে মুনে হয় SmileSmile

৩৭

তানবীরা's picture


Tongue

৩৮

রাফি's picture


অটোগ্রাফ কি দেয়া শুরু করছেন? দিলে পয়লা আমারে দিতে হৈপে। বুকিং। Big smile

৩৯

তানবীরা's picture


আইচ্ছা লাইনে দাড়াও Laughing out loud

৪০

ঈশান মাহমুদ's picture


ভাবের অভাব বাঙালীর কোনকালেই হয় নাই, অপনারো না হোক।

৪১

ঈশান মাহমুদ's picture


ভাবের অভাব বাঙালীর কোনকালেই হয় নাই, অপনারো না হোক।

৪২

তানবীরা's picture


সেজন্যই বাঙ্গালীর ভেতো স্বভাব ঘুচলো না। আপনার শুভ কামনার জন্য অনেক অনেক ধন্যবাদ ঈশান, ভালো থাকবেন।

৪৩

জুলিয়ান সিদ্দিকী's picture


বেশিক্ষণ ভাব ধইরা থাকলে ভ্যাজালও আছে। নইলে ভাব যদি ভার হইতে থাকে কাইত হইতে দেরি লাগবে না।

ভাঙ্গাকূলা থাইক্যা দুধভাত ভালো। কিঞ্ছিৎ সর্মানেরও

৪৪

তানবীরা's picture


সেইটাই দাদা, সবই কপালের লিখন Puzzled

মন্তব্য করুন

(আপনার প্রদান কৃত তথ্য কখনোই প্রকাশ করা হবেনা অথবা অন্য কোন মাধ্যমে শেয়ার করা হবেনা।)
ইমোটিকন
:):D:bigsmile:;):p:O:|:(:~:((8):steve:J):glasses::party::love:
  • Web page addresses and e-mail addresses turn into links automatically.
  • Allowed HTML tags: <a> <em> <strong> <cite> <code> <ul> <ol> <li> <dl> <dt> <dd> <img> <b> <u> <i> <br /> <p> <blockquote>
  • Lines and paragraphs break automatically.
  • Textual smileys will be replaced with graphical ones.

পোস্ট সাজাতে বাড়তি সুবিধাদি - ফর্মেটিং অপশন।

CAPTCHA
This question is for testing whether you are a human visitor and to prevent automated spam submissions.

বন্ধুর কথা

তানবীরা's picture

নিজের সম্পর্কে

It is not the cloth I’m wearing …………it is the style I’m carrying

http://ratjagapakhi.blogspot.com/